খাগড়াছড়ি, , মঙ্গলবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮

শান্তিপুর্ণ ও স্থিতিশীল সমাজ প্রতিষ্ঠায় ঐক্যের কোন বিকল্প নেই….এডিএম মো: আবুল আমিন

প্রকাশ: ২০১৭-০১-১২ ১৫:৪৮:৩৮ || আপডেট: ২০১৭-০১-১২ ১৫:৪৮:৩৮

11.01.2017_Matiranga Santi Sommelon News Picখাগড়াছড়ি প্রতিনিধি : বাংলাদেশে জঙ্গীদের কোন সঙ্গী নেই। বর্তমান সরকারের সুচিত উন্নয়নের চলমান গতিধারা অব্যাহত রাখতে শান্তির কোন বিকল্প নেই। শান্তিই হচ্ছে উন্নয়নের পূর্বশর্ত। জঙ্গীবাদ শান্তি, উন্নয়ন ও নিরাপত্তার প্রধান শত্রু। টেকসই উন্নয়ন ত্বরান্বিত করাসহ শান্তিপুর্ণ  ও স্থিতিশীল সমাজ প্রতিষ্ঠায় ঐক্যের কোন বিকল্প নেই। জঙ্গীবাদের নামে দেশের উন্নয়নকে বাধাগ্রস্থ করার ষড়যন্ত্র করা হয়েছে।

মাটিরাঙ্গার তিনদিনব্যাপী উন্নয়ন মেলার তৃতীয় দিনে বিভিন্ন ধর্মাবলম্বী ধর্মীয় নেতৃবুন্দের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত ব্যাতিক্রমী আযোজন শান্তি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন খাগড়াছড়ির অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট (এডিএম) মো: আবুল আমিন।

আফগানিস্তানের প্রসঙ্গ টেনে খাগড়াছড়ির অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট (এডিএম) মো: আবুল আমিন বলেন, সেখানে অবারিত শান্তি ছিলনা বলেই উন্নয়ন থেকে পিছিয়ে গেছে। নিরাপত্তা বিঘিœত হয়েছে। হানাহানির মতো ঘটনা ঘটেছে। রক্তপাত হয়েছে। বাংলাদেশকে আফগানিস্তান বানানোর ষড়যন্ত্র করা হয়েছে দাবী করে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যোগ্য নেতৃত্বের ফলে সব চেষ্ঠাই ব্যার্থ হয়েছে।

মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বি.এম মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে মেলামঞ্চে অনুষ্ঠিত শান্তি সম্মেলনে মাটিরাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ মো: সাহাদাত হোসেন টিটো, মাটিরাঙ্গা উপজেলা প্রকৌশলী মো: আনোয়ারুল হক, মাটিরাঙ্গা কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতীব আলহাজ¦ হাফেজ মাও. হারুনুর রশিদ, মাটিরাঙ্গা সার্বজনীন গৌতম বৌদ্ধ বিহারের বিহার অধ্যক্ষ মঙ্গলজ্যোতি ভিক্ষু, মাটিরাঙ্গা কেন্দ্রীয় সার্বজনীন শ্রী শ্রী জগন্নাথ মন্দিরের পুরোহিত রবীন্দ্র চক্রবর্তী, মাটিরাঙ্গা প্রেস ক্লাবের সভাপতি এম এম জাহাঙ্গীর আলম ও মাটিরাঙ্গা সদর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান হিরনজয় ত্রিপুরা প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

ইসলামের পাশাপাশি সকল ধর্মই সন্ত্রাস ও জঙ্গীবাদসহ যে কোন ধরনের নৈরাজ্যকে যেমন অনুমতি দেয়না, তেমনি যারা করে তারাও ঐ ধর্মের পরিপূর্ণ সঠিক অনুসারী হিসেবে গণ্য হয়না এমন মন্তব্য করে মাটিরাঙ্গা কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতীব আলহাজ¦ হাফেজ মাও. হারুনুর রশিদ বলেন, ইসলাম সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদ, চরমপন্থা ও নৈরাজ্যের বিরুদ্ধে কঠোর। তিনি বলেন, জিহাদ ও জঙ্গীবাদ এক নয়। জিহাদ ফরজ আর জঙ্গীবাদ হারাম।

বাংলাদেশকে সম্প্রীতির দেশ উল্লেখ করে মাটিরাঙ্গা সার্বজনীন গৌতম বৌদ্ধ বিহারের বিহার অধ্যক্ষ মঙ্গলজ্যোতি ভিক্ষু বলেন, জঙ্গীবাদ বা সন্ত্রাসবাদকে কোন ধর্মই সমর্থন করেনা। বৌদ্ধ ধর্ম শান্তির ধর্ম উল্লেখ করে তিনি বলেন সন্ত্রাসবাদকে বৌদ্ধ ধর্ম সমর্থন করেনা। বৌদ্ধ ধর্ম ‘পরম সহিষ্ণুতা’র পথ দেখায়। যেখানে সন্ত্রাসের কোন জায়গা নেই।

সভাপতির বক্তব্যে মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বি. এম মশিউর রহমান বলেন, এমডিজি অর্জনের মধ্য দিয়ে এসডিজি বাস্তবায়নের দিকে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। দেশের মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে বিরোধীতাকারীদের রাজাকার হিসেবে চিহ্নিত করার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, দেশের শান্তি, সম্প্রীতি আর উন্নয়নের বিরোধীতাকারীরাও একসময় ‘নব্য রাজাকার’ হিসেবে চিহ্নিত হবে। তাই তিনি সকলকে সরকারের উন্নয়ন ট্রেনের যাত্রী হওয়ার আহবান জানান।

উন্নয়ন মেলার ব্যাতিক্রমী আয়োজন শান্তি সম্মেলনে অংশ নেয়া মাটিরাঙ্গার বিভিন্ন মসজিদের ইমাম, আলেম-ওলামা, বিভিন্ন মন্দিরের পুরোহিতসহ ধর্মীয় নেতৃবৃন্দ, নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি, সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের জঙ্গীবিরোধী শপথ বাক্য পাঠ করান খাগড়াছড়ির অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট (এডিএম) মো: আবুল আমিন।

এদিকে সরকার ঘোষিত তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলায় সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন মুলক কর্মকান্ড জনগনের সামনে তুলে ধরার পাশাপাশি জঙ্গীবাদ ও সন্ত্রাস বিরোধী শান্তি সম্মেলন আযোজনের জন্য মাটিরাঙ্গা উপজেলা প্রশাসনকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন মাটিরাঙ্গা ইসলামিয়া আলীম মাদরাসার অধ্যক্ষ কাজী মো: সলিম উল্যাহসহ আলেমসমাজের নেতৃবৃন্দ।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

পূর্বের সংবাদ

December 2018
M T W T F S S
« Nov    
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31  

এই সপ্তাহের আলোকিত পাহাড় প্রথম পাতা

এই সপ্তাহের আলোকিত পাহাড় শেষ পাতা

বিজ্ঞাপন