খাগড়াছড়ি, , শুক্রবার, ২২ জুন ২০১৮

নোটবই থেকে প্রশ্ন করায় ফের এক শিক্ষককে খাগড়াছড়িতে বদলি

প্রকাশ: ২০১৬-১১-১৫ ১৩:৩৫:৪০ || আপডেট: ২০১৬-১১-১৫ ১৩:৩৫:৪০

aloনিজস্ব প্রতিবেদকঃ জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষায় কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে বাংলা প্রথম পত্রের প্রশ্ন হুবহু গাইড বই থেকে তুলে দেওয়ার শাস্তি হিসেব এক শিক্ষককে ফেনী থেকে ফের খাগড়াছড়িতে বদলি করেছে সরকার। একইসঙ্গে চার শিক্ষককে কারণ দর্শানোর নোটিস (শো-কজ) দেওয়া হয়েছে।

সোমবার শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জাননো হয়।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, পৃথক অফিস আদেশে আবদুল ওহাবকে ফেনী সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় থেকে খাগড়াছড়ির রামগড় সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক হিসেবে বদলি করা হয়েছে। এছাড়া প্রশ্ন পরিশোধনকারী কুমিল্লা জিলা স্কুলের সহকারী শিক্ষক রিক্তা বডুয়া, চাঁদপুর হাসান আলী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নাছিমা খানম ও নোয়াখালী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. শামিম আক্তারকেও সাত কার্যদিবসের মধ্যে কারণ দর্শাতে বলা হয়েছে।

এ দিকে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব সুবোধ চন্দ্র ঢালী স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সোমবার জানানো হয়, শিক্ষা মন্ত্রণালয় কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি পরীক্ষা ২০১৬ এর বাংলা প্রথমপত্র পরীক্ষার প্রশ্নপত্র প্রণয়ন ও পরিশোধনের দায়িত্ব পালনে অযোগ্যতা ও অবহেলার কারণে সংশ্লিষ্ট পাঁচজন শিক্ষকের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালককে (মাউশি) নির্দেশ দেওয়া হয়। শিক্ষা বোর্ডের সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা থাকা সত্বেও বাজারে প্রকাশিত গাইড বই থেকে প্রশ্ন করায় তাদের বিরুদ্ধে এ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

পূর্বের সংবাদ

June 2018
M T W T F S S
« May    
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
252627282930  

এই সপ্তাহের আলোকিত পাহাড় প্রথম পাতা

এই সপ্তাহের আলোকিত পাহাড় শেষ পাতা

বিজ্ঞাপন

error: Content is protected !!